সাম্প্রতিক সময়ে শিশুদের বিরুদ্ধে সহিংসতা বিষয়ে ইউনিসেফ এর বিবৃতি

সাম্প্রতিক সময়ে শিশুদের বিরুদ্ধে সহিংসতা বিষয়ে ইউনিসেফ এর বিবৃতি

সংবাদ বিজ্ঞপ্তিঃ ইউনিসেফ বাংলাদেশ, সম্প্রতি ১০ বছর বয়সী একটি শিশুকে নারায়ণগঞ্জে তাঁর কাজের স্থানে সহিংসতার শিকার হওয়া এবং তাকে জঘন্য ভাবে হত্যা করায় গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করেছে । এই ধরনের ঘটনা সম্পূর্ণরূপে শিশু অধিকার এর নীতি বিরোধী এবং ইউনিসেফ এক্ষেত্রে তার অবস্থান পুনর্ব্যক্ত করে সহিংকতার ক্ষেত্রে শিশুদের সহজ লক্ষ্যবস্তু হিসেবে ব্যবহার করা ও বিভিন্নক্ষেত্রে বিদ্যবান শিশুশ্রম তার উদ্বেগ প্রকাশ করেছে ।

ইউনিসেফ আশা করে যে, সুপ্রিম কোর্ট সহ বাংলাদেশে সরকার এই ঘটনার সাথে জড়িতদের বিরুদ্ধে দ্রুততম সময়ে আইনের আওতায় এনে তাদের বিচারের মুখোমুখি করা হবে । একই সাথে ইউনিসেফ বাংলাদেশ সরকারকে, শিশু অধিকার বিষয়ক জাতিসংঘ কমিটি বাংলাদেশের ৫ম পিরিয়ডিক রিপোর্ট প্রসঙ্গে তাদের যে পর্যবেক্ষণ সমূহ দিয়েছে তা পূনরায় বিবেচনা করে শিশুদের বিরুদ্ধে সহিংসতা শিশু বিবাহ এবং শিশুশ্রম বন্ধ করার জন্য দ্রুত পদক্ষেপ নেয়ার অনুরোধ করছে ।

এছাড়াও, শিশু আইন ২০১৩ অনুসারে শক্তিশালী শিশু সুরক্ষা ও শিশু অধিকার পর্যবেক্ষণ প্রক্রিয়া দৃঢ় করার জন্য স্থানীয় ও জাতীয় পর্যায়ে শিশু কল্যাণ বোর্ড সক্রিয় করার জন্য ইউনিসেফ সরকারকে বিশেষ ভাবে অনুরোধ করছে । এক্ষেত্রে শ্রম আইন অনুযায়ী, শ্রম পরিদর্শক দিয়ে নিয়মিত ভাবে আনুষ্ঠানিক ও অনানুষ্ঠিক শিল্প মনিটরিং ও জোরদার করা প্রয়োজন । শ্রম আইন পুনঃ পর্যালোচনার মাধ্যমে শিশুদের জন্য হালকা শ্রম পুনরায় সংজ্ঞায়িত করা এবং গৃহকর্মী হিসাবে শিশু শ্রমকে ঝুঁকিপূর্ণ শ্রমের তালিকায় অন্তর্ভুক্ত করা অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ । ইউনিসেফ দৃঢ়ভাবে বিশ্বাসী করে যে শিশু সুরক্ষা নিশ্চিত করার জন্য সরকার জরুরী পদক্ষেপ নেবে ।

শিশুদের বিরুদ্ধে সব ধরনের সহিংসতার ইউনিসেফ জিরো টলারেন্স এ বিশ্বাস করে এবং শিশু অধিকার লঙ্ঘন বন্ধ করার জন্য সরকার কর্তৃক গৃহীত সকল পদক্ষেপে পূর্ণ সহযোগিতা দিতে ইউনিসেফ প্রতিশ্রুতিবন্ধ । ইউনিসেফ বিশ্বাস করে যে, সকলের সম্মিলিত প্রচিষ্টার মাধ্যমে সব শিশু, বিশেষ করে প্রান্তিক জনগোষ্ঠীর শিশুদের অধিকার রক্ষা করা সম্ভব ।

আরো খবর: