জেলা প্রশাসনের সঙ্গে রায়েরবাজার এনসিটিএফ এর শিশু অধিকার পরিস্থিতি বিষয়ক সংলাপ

জেলা প্রশাসনের সঙ্গে রায়েরবাজার এনসিটিএফ এর শিশু অধিকার পরিস্থিতি বিষয়ক সংলাপ

এনসিটিএফ রায়েরবাজার কমিটির আয়োজনে এমএসএম, বাংলাদেশ শিশু একাডেমি ও সেভ দ্য চিলড্রেন এর সহযোগিতায় ঢাকা জেলা প্রশাসক সম্মেলন কক্ষে শিশু অধিকার বিষয়ক পরিস্থিতি সংলাপ অনুষ্ঠিত হয়। এনসিটিএফ সভাপতি আরিফুজ্জামান এর সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি ছিলেন জনাব মোহাম্মদ সালাহ উদ্দিন, মাননীয় জেলা প্রশাসক, ঢাকা। বিশেষ অতিথি ছিলেন মোঃ মজিবুর রহমান, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক), জনাব মোঃ শহীদুল ইসলাম, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব), জনাব মোঃ সাইদুর রহমান, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার, ঢাকা, জনাব রাশিদা বেগম, জেলা শিশু বিষয়ক কর্মকর্তা, বাংলাদশে শিশু একাডেমি, জেসমিন আক্তার, উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা, সোনিয়া ফারহানা রহমান, রিসার্স অফিসার (মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তার প্রতিনিধি), ডাঃ শামীমা আশরাফী সুইটি, মেডিকেল অফিসার (সিভিল সার্জন এর প্রতিনিধি), আবু জাফর মোহাম্মদ হোসেন, সিনিয়র অফিসার, সেভ দ্য চিলড্রেন, শায়লা সুলতানা, প্রোগ্রাম ম্যানেজার, এমএসএস, আফরিন আক্তার, প্রোগ্রাম অফিসার, এমএসএস, এনসিটিএফ ঢাকা জেলা কমিটির সদস্যবৃন্দ ও এনসিটিএফ রায়েরবাজার কমিটির ২১ জন সদস্য উপস্থিত ছিলেন। অনুষ্ঠানের অনুষ্ঠানের শুরুতে বিজয় দিবস উপলক্ষ্যে স্বাধীনতা যুদ্ধের আহত ও নিহতদের প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদনের জন্য শিশু ও অতিথিবৃন্দসহ সকলে এক মিনিট বিরতি পালন করে। উক্ত সংলাপে এনসিটিএফ রায়েরবাজার কমিটির সদস্যবৃন্দ ২০১৪ সনে কমিটি গঠনের পর থেকে তাদের সম্পাদিত কাজ ও অর্জন সমূহ তুলে ধরে। তাছাড়াও শিশুরা বিভিন্ন সরকারি-বেসরকারি শিক্ষা, স্বাস্থ্যকেন্দ্র এবং এ এলাকার বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান পরিদর্শন এর উপর ভিত্তি করে বিভিন্ন ধরণের প্রশ্ন আমন্ত্রিত অতিথিবৃন্দের বরাবর তুলে ধরে। যেমন: মাধ্যমিক বিদ্যলয়ে এসএসসি পরীক্ষার ফরম পূরণে অতিরিক্ত ফী নেয়া, বোর্ড এর বই এর জন্য শিক্ষার্থীর কাছ থেকে টাকা নেয়া, শিক্ষক কর্র্তৃক যৌন হয়রানী মূলক আচরণ করা, শারিরীক ও মানসিক শাস্তি প্রদান, এলাকায় যৌন হয়রানী (ইভ টিজিং), স্বাস্থ্যসেবা, বাল্যবিবাহ, জন্মনিবন্ধনসহ বিভিন্ন বিষয়ে প্রশ্ন উত্থাপন করে এর সমাধানের জন্য আমন্ত্রিত অতিথিবর্গের দৃস্টি আকর্ষণ করে। অতিথিবৃন্দ বলেন শিশুদের প্রত্যেকটি প্রশ্নই খুবই গুরুত্বপূর্ন। তারা সংশ্লিস্ট দপ্তরের সঙ্গে আলোচনা করে উল্লেখিত বিষয়ের সমাধানের জন্য পদক্ষেপ গ্রহণের অঙ্গীকার করেন। এনসটিএফ শিশুদের উপস্থাপন কৌশল ও উত্থাপিত প্রশ্ন প্রসঙ্গে শিশুদের প্রশংসা করেন। শিশুরা যে শিশুদের অধিকার বিষয়ে সচেতন হয়ে বিভিন্ন ধরণের কাজ করেছে এর জন্য প্রশংসা করেন। তারা বলেন এই শিশুদের কাজ দেখে আমরা অভিভূত। তোমরা আগামীদিনে যোগ্য নাগরিক হিসেবে গড়ে উঠবে। জনাব মোঃ সাইদুর রহমান, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার, ঢাকা জেলা মহোদয় রায়েরবাজার এলাকায় যৌন হয়রানী (ইভ টিজিং), বাল্যবিবাহ, শিক্ষক কর্র্তৃক যৌন হয়রানী মূলক আচরণ করা সহ যে কোনো ধরণের শিশু অধিকার ও নির্যাতনের ঘটনা ঘটলে তাকে জানাতে বলেন এবং তিনি তার মোবাইল নম্বর প্রদান করেন ও তাকে জানালে তাৎক্ষনিক ব্যবস্থা নেবেন বলে জানান। মোঃ শহীদুল ইসলাম, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) বলেন তোমরা কাজ করো, সমস্যা হলে আমাদের জানাবে ঢাকা জেলা প্রশাসন তোমাদের পার্শ্বে থাকবে। জন্ম নিবন্ধন করতে টাকা লাগে এবিষয়ে প্রশ্নোত্তরে বলেন, উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তা বা জেলা শিশু বিষয়ক কর্মকর্তার মাধ্যমে রায়েরবাজার বস্তি এলাকার শিশুরা বিনামূল্যে জন্ম নিবন্ধন করতে পারবে।

আরো খবর: