সর্বশেষ:

কুষ্টিয়ায় সুবিধা বঞ্চিত শিশুদের সাথে একটি দিন উদযাপন সবার জন্য হাসি” সেচ্ছাসেবী সংগঠনের

কুষ্টিয়ায় সুবিধা বঞ্চিত শিশুদের সাথে একটি দিন উদযাপন সবার জন্য হাসি” সেচ্ছাসেবী সংগঠনের

 

 

কুষ্টিয়া কেন্দ্রিক “সবার জন্য হাসি” সেচ্ছাসেবী সংগঠনের ২য় প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে ৩০ জন সুবিধা বঞ্চিত শিশুদের সাথে একটি দিন উদযাপন করলো সংগঠনটি। সকলের মুখে হাসি ফুটানোর লক্ষ্যে ২০১৫ সালের ২রা মে সংগঠনটি তাদের যাত্রা শুরু করে। সুবিধা বঞ্চিত মানুষের পাশে দাঁড়িয়ে তাদের হাসানোর দায়িত্ব নিয়েছে সংগঠনটি। যাদের মধ্যে শিশু এবং বৃদ্ধদের প্রতি রয়েছে বেশি গুরুত্ব । আজ জেলা সদরের “চিলিস ফুড পার্ক” নামক একটি স্বনামধন্য রেস্টুরেন্টে ৩০ শিশু এবং সাংগঠনিক প্রায় ২৫ জন সেচ্ছাসেবকের সহায়তায় অনুষ্ঠানটি অনুষ্ঠিত হয়। প্রথমে সকলের উপস্থিতিতে একটি কেক কাটা হয়। কেকটি উপস্থিত শিশুদের জন্মদিনের উদ্দেশ্যে উৎসর্গ করে সংগঠনটি। এরপর শিশুগুলিকে দুপুরের আহার করানো হয়। অনুষ্ঠানের এক পর্যায়ে শিশুদের জন্য কিছু বিনোদনের আয়োজন করা হয় এবং সেখানে শিশুগুলি আনন্দের সাথে অংশগ্রহণ করে। বিনোদনের ছলে তাদের খাওয়ার আগের হাত ধুয়ার নিয়ম, সব সময় পরিষ্কার পরিচ্ছন্ন থাকার কৌশল ও বড়দের সম্মান করার ব্যপারে জানানো হয়। সবশেষে বিকেল বেলা জেলা শিশু পার্কে তাদের কে নিয়ে তাদের পছন্দের রাইডে চড়ানো হয়, সাথে তাদের জন্য থাকে আইসক্রিম। একদিনের বিনোদনটি ছিলো তাদের কাছে রূপকথার গল্পের মতো। শিশু গুলির মাঝে তাদের অনুভূতি জানতে চাওয়া হলে তাদের মাঝে উপস্থিত মিতু(৬) জানায় “আমার খুব ভাললাগছে, ভাইয়া আপুগো সাথে অনেক মজা করছি”। অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলো সংগঠনের কেন্দ্রীয় শাখার সহ সভাপতি সোহান পলক, সাধারণ সম্পাদক মাহমুদুল সোহাগ সহ মামুন, তন্ময়, খালিদ, বুখারি। সাথে উপস্থিত ছিলো সংবাদ মাধ্যম দৈনিক সূত্রপাতের স্টাফ রিপোর্টার কিসলুর রহমান। সংঠনের পক্ষ থেকে তরুণ সাংগঠনিক সোহান পলক জানায় “শিশুদের নিয়ে অনেক পরিকল্পনা হাতে নিয়েছি আমরা, যার মধ্যে দরিদ্র শিশু শিক্ষা নিশ্চিত, মেধাবী শিশুদের মেধা বৃত্তি সহ আমাদের নানা রকম আয়োজন রয়েছে দরিদ্র শিশুদের জন্য। ব্যতিক্রমধর্মী আমাদের সংগঠনে ইতিমধ্যে আমরা বন্যার্তদের মাঝে ত্রাণ, শিশুদের মাঝে ঈদ বস্ত্র বিতরণ, স্কুল ম্যাগাজিন প্রকাশনা, বৃক্ষরোপন কর্মসূচী সহ নানা কাজ করেছি। আমাদের বর্তমান ফান্ড নিজেদের অর্থায়নে পরিচালিত হচ্ছে। যদি আমাদের সাথে সমাজের উচ্চ শ্রেনীর মানুষ এগিয়ে আসে তবে আমরা আরো অসহায় মানুষের পাশে দাঁড়াতে পারবো। সর্বশেষে সকলের কাছে আমাদের সংগঠনের জন্য আমরা দোয়া প্রার্থনা করছি”

 

আরো খবর: